শহুরে কম্পোস্ট

প্রতিদিন ফলের খোসা ও শাক শব্জির যে অংশ আমরা ফেলে দেই তা শহরের আবর্জনাকেই বাড়িয়ে দেই। এটা দিয়ে সহজেই আমরা কম্পোস্ট বানাতে পারি। শহুরে পরিবেশে একটা ছোট বাগান করতে গেলে সবচেয়ে আভাব হয় মাটির। আর মাটি ছাড়া শুধু এই ফেলে দেওয়া অংশকে একটি পাত্রে সংগ্রহ করলে কয়েক মাসের মধ্যে বেশ ভাল মানের কম্পোস্ট হতে পারে।

আমি যেভাবে টবে গাছ লাগাই-

  • প্রথমে কিছু মাটি সংগ্রহ করে নেই। (মাটি পাওয়া একটু কষ্টকর হয় তাই কাউকে টাকা দিয়ে মাটি এনে দিতে বলি।)
  • টবের নিচের অংশে ছিদ্রের উপরে চারা বা ইটের সুরকি দিয়ে দেই। যাতে শুধু অতিরিক্ত পানি বের হয়।
  • টবের নিচের তিন চতুর্থাংশ ফলের খোসা ও শাক শব্জির ফেলে দেওয়া অংশ দিয়ে ভরাট করি।
  • উপরে অংশটিকে মাটি দিয়ে ভরাট করে দুই মাস রেখে দেই। উপরে মাটি দিয়ে রাখার কারনে ঘরে দুঃগন্ধ যায় না।
  • দুই মাস পরে উপরের অংশ অনেকটা নিজের দিতে নেমে যায়। উপরে আরো কিছু মাটি দিয়ে শাক জাতীয় বীজ রোপন করি। চাড়া বড় হতে হতে নিচের অংশ আরো ভালভাবে পঁচে যায়।
  • এই শাক খাওয়ার উপযুক্ত হলে সম্পূর্ণটা তুলে ফেলি।
  • টবের সব মাটি (ইতি মধ্যে সব মাটি হয়ে গেছে) টব থেকে নামিয়ে ভালভাবে মিশিয়ে নিয়ে টবে ভরি এবং ভিন্ন কোন শাক বীজ লাগাই। এবং কিছু অংশ নতুন একটি টবের কম্পোস্ট বানাতে সাহায্য করে। এভাবে বাগানটি বড় হয়।

যাদের বাসায় বড় জায়গা আছে তারা বাসা থেকে একটু দূরে বড় একটি গর্ত করে বা বড় কোন পাত্রে আলাদা ভাবে কম্পোস্ট তৈরী করে নিতে পারেন।

Facebook Notice for EU! You need to login to view and post FB Comments!

Leave a Reply