শিশুর হীনমন্যতা

ধনী হওয়ার বাসনাটা শিশুকাল থেকে মাথায় ঢোকে। দরিদ্র বাবা মায়ের শিশুরা ঈদে এবং স্কুলে গিয়ে ধনী শিশুদের সার্নিধ্যের মাধ্যমে নিজেকে অগুরুত্বপূর্ণ দেখে কষ্ট পায়, হিনমন্যতা তার মাথায় ঢুকে যায়। সেটা অনেকের কৈশর ও যৌবনের উদ্দিপ্ততাকেও ম্লান করে দিতে পারে।

আর শিশুদের শিক্ষা দেওয়া উচিৎ সে যেন তার কোন মূল্যবান জিনিস নিয়ে অধিক গর্ব না করে এবং অন্য শিশুদের (কোন কিছুর অভাবে) তিরস্কার না করে।

আপনার শিশুকে দামি খেলনা কিনে দিলে সে যেন সেই খেলনা নিয়ে দরিদ্র শিশুদের সামনে না খেলে। সমকক্ষদের সাথে খেলতে দিন।

প্রতিটি শিশুর আত্নসম্মান আছে। কিশোরেরও। কিশোররা তার বাবা-মায়ের আর্থিক আবস্থা বুঝে ফেলে। এই সময় ধনী বন্ধুদের এটা ওটা দেখে সেটা আবদার করতে পারে। সেটা না পেয়ে নিজেকে অগুরুত্বপূর্ণ যেন না ভাবে। দারিদ্রতার মাধ্যমে অনেক কিছু অর্জন সম্ভব সেটা বোঝানো যেতে পারে।

ধনী হওয়ার বাসনাটা শিশুকাল থেকে মাথায় ঢোকে। দরিদ্র বাবা মায়ের শিশুরা ঈদে এবং স্কুলে গিয়ে ধনী শিশুদের সার্নিধ্যের মাধ্যমে…

Posted by Mahbub Tuto on Monday, September 4, 2017

 

1 thought on “শিশুর হীনমন্যতা”

  1. Pingback: ২০১৭ সালে আমার লেখা ও ভিডিও – মাহবুবের লেখা

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *